পীরগঞ্জের যৌতুকের বলি রাসু

দ্বারা hello@anbnews24.com
পীরগঞ্জের যৌতুকের বলি রাসু


বখতিয়ার রহমান, পীরগঞ্জ(রংপুর) স্বামী সংসার নিয়ে অনেক স্বপ্ন ছিল পীরগঞ্জের নববধু রাসুর । অথচ এতে বাঁধা হয়ে দাঁড়িয়েছে অর্থ । যৌতুক লোভী স্বামীকে মোটা অংকের যৌতুক দিতে না পাড়ায় ২ মাসের শিশু সন্তানকে নিয়ে পিত্রালয়ে অবস্থানরত রাসু বাধ্য হয়ে রংপুরের বিজ্ঞ আদালতে যৌতুক নিরোধ আইনে একটা মামলা করেছেন ।
অভিযোগে জানা গেছে, উপজেলার কুমেদপুর ইউনিয়নের বউলবাড়ী গ্রামের খন্দকার সরোয়ার হোসেনের কন্যা রাসু খাতুন । একাদশ শ্রেণীতে অধ্যয়নরত অবস্থায় গত ২০২০ সনের ২ নভেম্বর বিয়ে হয় রংপুর জেলা সদরের হারাটি গ্রামের নুরুল ইসলামের পুত্র জাকির হোসেনের সঙ্গে । বিয়ের ক’মাস ভালই যাচ্ছিল তাদের সংসার । পরবর্তিতে জাকির হোসেন তার স্ত্রী রাসুর কাছে ২ লাখ টাকা যৌতুক দাবী করে । রাসুর বাবা অনেক কষ্টে জাকিরকে ৫০ হাজার টাকা প্রদান করলেও জাকির সন্তষ্ট হয়নি । রাসুর কাছে আরও টাকার জন্য চাপ অব্যহত রাখে এবং এ জন্য মাঝে মধ্যে রাসুকে প্রহারও করে । তার পরেও রাসুর পরিবার জামাই জাকির এর দাবীকৃত টাকা দিতে ব্যর্থ হয় । এমনি অবস্থার পরিপ্রেক্ষিতে চলতি ২০ মে জাকির ও তার পরিবারের লোকজন যৌতুকের টাকার জন্য রাসুকে প্রহার করে বাড়ী থেকে বের করে দেয় । প্রায় ৮ মাসের অন্তসত্বা রাসু অসুস্থ শরীরে সেদিন বাবার বাড়ী চলে আসেন । তখন থেকে রাসু পিত্রালয়ে অবস্থান করা অবস্থায় গত ২৯ আগষ্ট পুত্র সন্তানের মা হয় । রাসু পিত্রালয়ে চলে আসার পর থেকে তার শশুর বাড়ীর লোকজন তার সঙ্গে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন রেখেছে । তাই ২ মাসের শিশু সন্তান নিয়ে দুশ্চিন্তা ও হতাশা গ্রস্থ রাসু গত ২৮ সেপ্টেম্বর বিজ্ঞ আদালতে এ মামলা দায়ের করেন । যার সি আর নং-৩২৩/২১ । 

এদিকে কন্যা রাসুর এহেন পরিস্থিতিতে রাসুর ভবিষ্যৎ নিয়ে অনেকটাই দিশেহারা হয়ে পড়েছে রাসুর দরিদ্র বৃদ্ধ পিতা মাতা । রাসু তার প্রতিক্রিয়ায় কান্না জড়িত কন্ঠে এ প্রতিনিধিকে বলেন, আমার বৃদ্ধ পিতা মাতাকে আর কত কষ্ট দিব ? আমার ভবিষ্যৎ কি হবে ?

শেয়ার করুন
0 মন্তব্য

মতামত দিন

Related Articles